ফরিদগঞ্জ মাদকের প্রতিবাদ করায় ৪ যুবককে ছুরিকাঘাত

শাহরিয়ার খান কৌশিক,

চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ উপজেলা সন্তোষপুর গ্রামে মাদক বিক্রি সময় প্রতিবাদ করায় চার যুবককে ছুরিকাঘাত করেছে মাদক ব্যবসায়ীরা।
গুরুতর আহতদের চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসলে আহতদের মধ্যে নাজমুল হোসেন (২৫) সোহেল (২৮) ও সবুজ (২১) কে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে রেফার করেন।
ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার রাত সাড়ে ১১ টায় ফরিদগঞ্জ ১১ নং ইউনিয়নের সন্তোষপুর গ্রামের কাজী বাড়ির সামনে।
আহতদের পরিবারের জানায়, রামপুর পূর্ব বাজারের মাদক ব্যবসায়ী মুনাফের ছেলে রাসেল ও তার সহযোগী ইয়াসিন, রানা ফরিদগঞ্জে বিভিন্ন ইউনিয়নে মাদক বিক্রি করে আসছিল। তারা সন্তোষপুর গ্রামে মাদক বিক্রি কালে এলাকার যুবকরা প্রতিবাদ করে।
এ সময় তারা মোশারফ ও শাকিলকে তারা মারধোর করে।
এ ঘটনায় ১১ নং ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের বর্তমান মেম্বার বাচ্চু পাটোয়ারী ছেলে সবুজ ও তার চাচাতো ভাই সোহেল এবং নাজমুল হোসেন ঘটনাটি জিজ্ঞাসা করতে আসলে হামলাকারী রাসেল সহ তার সহযোগীরা তাদেরকে ছুরিকাঘাত করে।
হামলায় মেম্বার বাচ্চু পাটোয়ারী ছেলে সবুজের বুকে ও পেটে ছুরির আঘাতে মারাত্মক জখম হয়ে অনেক রক্তক্ষরণ হয়।
মেম্বার বাচ্চু পাটোয়ারী জানায়, ফরিদগঞ্জে প্রতিটি পাড়া-মহল্লায় এই মাদক ব্যবসায়ীরা বীজ বপন করেছে। তারা এই এলাকায় দীর্ঘদিন যাবৎ মাদক বিক্রি করে আসছে। মাদকের প্রতিবাদ করায় মাদক ব্যবসায়ীরা ছুরি দিয়ে ছুরিকাঘাত করে চারজনকে আহত করে।
এদের মধ্যে তিনজনকে প্রথমে ফরিদগঞ্জ চতুরা হাসপাতাল নিয়ে গেলে সেখান থেকে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে রেফার করা হয়। তাদের অবস্থা অবনতি হাওয়ায় হাসপাতালের কর্তব্যরত ডাক্তার দ্রুত তাদেরকে ঢাকা মেডিকেলে পাঠিয়ে দেয়।
আমরা প্রশাসনের কাছে এই মাদক বিক্রেতা হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি জানাচ্ছি।
এ ঘটনায় ফরিদগঞ্জ থানায় হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানায়।