চাঁদপুরে বজ্রপাতে মা-ছেলে নিহত: আহত-৩

স্টাফ রিপোর্টার:

চাঁদপুর সদর উপজেলার রাজরাজেশ্বর এলাকায় বজ্রপাতে মা ও ছেলে ঘটনাস্থলে নিহত হয়েছে এবং একই এলাকার লাকী আক্তার(৩৫),রাবেয়া বেগম(৩২) ও ফাতেমা আক্তার (৩০) বজ্রপাতের বিকট আওয়াজে আহত হয়ে চাঁদপুর সরকারী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে,গতকাল মঙ্গলবার বিকেল ৩টায় রাজরাজেশ্বর এলাকার প্রধানিয়া বাড়িতে ও ঢালী কান্দি এলাকায়। এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন রাজরাজেশ্বর এলাকার সাবেক চেয়ারম্যান মো: আবুল প্রধানিয়া ও বর্তমান মেম্বার মো: রনি প্রধানিয়া।
ঘটনার বিবরনে জানা যায়, গতকাল দুপুর থেকে আকাশে প্রচন্ড আকারে বিদ্যুৎ চমকাছিল ও বজ্রপাত হতে থাকে। দুপুর ৩টায় রাজরাজেশ্বর এলাকার ঢালী কান্দির দুলাল সর্দারের স্ত্রী সেলিনা বেগম(৩০) ও ছেলে ইয়াছিন সর্দার(১০) পুকুরে গোসল করছিল । হঠাৎ করে আকাশ থেকে বজ্রপাতের সৃস্টি হয়ে তাদের উপর পড়ে। ঘটনাস্থলে তারা ২জন গুরুত্বর আহত হয়ে পড়ে। একই সময় রাজরাজেশ্বর এলাকার প্রধানিয়া কান্দি এলাকায় ৩ জন গৃহবধু তাদের ঘরের পিড়া মাটি দিয়ে লেপতে ছিল । এ সময় বজ্রপাতের সৃস্টি হয়ে বজ্রপাত পাশ্ববর্তী স্থানে পড়লে, বজ্রপাতের আঘাত এসে তাদের গায়ে লাগে এবং বিকট আওয়াজে ঘটনাস্থলে লাকী,রাবেয়া ও ফাতেমা জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। তাৎক্ষনিক তাদেরকে উদ্বার করে বিকেল ৫টায় চাঁদপুর সরকারী জেনারেল হাসপালে এনে ভর্তি করা হলে কর্তব্যরত ডাক্তার মো:রায়হান, মা ও ছেলেকে মৃত ঘোষনা করলে, নিহতের আত্বীয় স্বজনরা লাশের নাম খাতায় না লিখিয়ে জোর পূবক লাশ নিয়ে পালিয়ে যায় বলে কর্তব্যরত ডাক্তার জানান। হাসপাতালে ভর্তিকৃত ৩জনের অবস্থা আশংকাজনক বলে ডাক্তার রায়হান জানান।