চাঁদপুরের মেঘনায় মালবাহী ট্রলারে ডাকাতের হামলায় আহত ৫

শাহরিয়ার খান কৌশিক,

চাঁদপুর মেঘনা নদীতে তরমুজ বোঝাই ট্রলারে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। ডাকাতের অতর্কিত হামলায় ৫ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত অবস্থায় চাঁদপুর চৌধুরী ঘাটের ফল ব্যবসায়ী মাসুদ বেপারী সহ অন্যান্য আহতদের উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।
বৃহস্পতিবার রাত আড়াইটায় চাঁদপুর হাইমচর উপজেলার চর ভৈরবী শেষ সীমানায় মেঘনা নদীতে এই ডাকাতির ঘটনা ঘটে।
হামলায় আহতরা হলেন ফল ব্যবসায়ী মাসুদ বেপারী ট্রলারের সুকানি মেহেদী হাসান(২৪) মনির হোসেন(৩৮) শাহাদাত হোসেন(২৮)ও জয়নাল(৪৮)।

মেঘনা নদীতে ডাকাতির ঘটনাটি চাঁদপুর নৌ পুলিশকে অবহিত করা হলেও তারা আইনগত কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি।
এছাড়া প্রতিনিয়ত এই রাতের আধারে মেঘনা নদীতে ডাকাতির ঘটনা ঘটছে।
নদীতে নৌ পুলিশ টহল অব্যাহত না রাখার কারণে ডাকাতির ঘটনা দিন দিন বেড়েই চলছে বলে নদী পথে যাতায়াতকারী টলার চালকরা অভিযোগ করেছেন।
নদীতে ডাকাতের একটি সংঘবদ্ধচক্র দ্রুতগামী ইঞ্জিন চালিত নৌকা নিয়ে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে মালবাহী ট্রলার ও যাত্রীবাহী টলারে হামলা চালিয়ে ডাকাতির ঘটনা ঘটায়। নদীতে এ ধরনের ডাকাতির ঘটনায় নৌ পুলিশ কোন ডাকাত আটক করতে না পারায় দিনদিন ডাকাতদের উপদ্রব বেড়ে চলছে।
হামলায় আহত মাসুদ বেপারী জানায়, ভোলা-চরফ্যাশন থেকে ৮০০০ তরমুজ নিয়ে স্টিল বডি ট্রলারটি ছেড়ে এসে চাঁদপুরে শেষ সীমানায় প্রবেশ করলেই ডাকাতরা অতর্কিতভাবে এসে হামলা চালায়। তারা ট্রলারে উঠে সাথে থাকা টাকা ,মোবাইল ও প্রায় তিনশত তরমুজ ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। ডাকাতের হামলায় দুজনের হাত ভেঙে গেছে। ঘটনাটি প্রশাসনকে অবহিত করা হলেও তারা কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি।