এক মাদক ব্যবসায়ীর ১০ বছর সশ্রম কারাদণ্ড

হাজীগঞ্জ উপজেলার কামরুল হাসান রাজু নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে মাদক মামলায় ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড, ২০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে আরো ৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

বৃহস্পতিবার (১৬ জানুয়ারি) দুপুরে চাঁদপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ সরোয়ার আলম এই রায় দেন। সাজাপ্রাপ্ত রাজু হাজীগঞ্জ উপজেলার চতন্তর গ্রামের বেপারী বাড়ির জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে। রায় দেয়ার সময় এই আসামী অনুপস্থিত ছিলো।

মামলার বিবরণ থেকে জানা যায়, ২০১৮ সালের ১৪ অক্টোবর সন্ধ্যা আনুমানিক সাড়ে ৭টার দিকে হাজীগঞ্জ থানা এলাকায় উপ-পরিদর্শক (এসআই) একেএম মাহমুদুল কবির মাদক বিরোধী অভিযান চালিয়ে মমিন মেম্বারের বাড়ি থেকে দুইজন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করার চেষ্টা করেন। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ওই ঘরে থাকা দুজন মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে একজন পালিয়ে যায়, তবে উল্লেখিত কামরুল হাসান রাজুকে আটক করতে সক্ষম হয়। পুলিশ তল্লাশি চালিয়ে ওই সময় রাজুর কাছ থেকে ৩১০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে এবং তার বিরুদ্ধে হাজীগঞ্জ থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা হয়।

মামলায় উল্লেখ করা হয়, আটক রাজুসহ আরেকজন মমিন মেম্বারের কাছ থেকে ইয়াবা ট্যাবলেট ক্রয় করে তাদের নিজ এলাকায় বিক্রির উদ্দেশ্যে নিয়ে যাচ্ছিলো।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা তৎকালীন হাজীগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোঃ সুমন মিয়া তদন্ত শেষে ২০১৮ সালের ২৭ নভেম্বর আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন।

সরকার পক্ষের সহকারী পাবলিক প্রসিকিউটর (এপিপি) অ্যাডঃ মজিবুর রহমান ভূঁইয়া বলেন, সাজাপ্রাপ্ত আসামী রাজু পলাতক। মামলাটি চলমান অবস্থায় আদালত ৫জনের সাক্ষ্য গ্রহণ করে। মামলার সাক্ষী ও নথি পর্যালোচনা করে আসামীর অনুপস্থিতিতে আদালত এই রায় দেয়।