গৃহবধূর অস্বাভাবিক মৃত্যুঃ–স্বামী ও শাশুড়ি জেল হাজতে শ্বশুর পলাতক

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ-
চাঁদপুর শহরের বিপণীবাগ এলাকায় গৃহবধূ নিহতের ঘটনায় আটক স্বামী সুমন ও শাশুড়ি ছালেহা বেগমকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। আর শ্বশুর মোঃ ইব্রাহীম পলাতক রয়েছে। গত শনিবার সকালে চাঁদপুর শহরের বিপণীবাগস্থ অতিথি ভিলার ৪র্থ তলা থেকে গৃহবধূ রাহিমা আক্তার হ্যাপির লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে হ্যাপির বাবা মোঃ নাজিম উদ্দিন মোলস্না বাদী হয়ে নিহতের স্বামী attohottaসরোয়ার হোসেন সুমন (৩২), তার শ্বশুর মোঃ ইব্রাহীম (৬২) ও শাশুড়ি ছালেহা বেগমের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ ১১(ক)/৩০ ধারায় মামলা করেন। এরই প্রেৰিতে মামলার তদনত্দকারী কর্মকর্তা এসআই আনোয়ার হোসেন দু’ জনকে আটক করলেও নিহতের শ্বশুরকে আটক করতে পারেননি। গতকাল আটককৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, বিবাহবার্ষিকী পালনকে কেন্দ্র করে গত শুক্রবার রাতে হ্যাপি ও সুমনের সাথে কথা কাটাকাটি হয়। শনিবার সকালে পুলিশ বাসা থেকে হ্যাপির লাশ উদ্ধার করে। স্থানীয় এলাকাবাসী জানায়, শ্বশুর বাড়ির লোকজনের হাতেই নির্মমভাবে নিহত হন গৃহবধূ হ্যাপি। শনিবার রাতেই হ্যাপির বাপের বাড়ি জাফরাবাদ এলাকায় ময়না তদনত্দ শেষে তাকে দাফন করা হয়।