ইমামের হাতে স্ত্রী খুন

images
মতলব প্রতিনিধি,
চাঁদপুর: মতলব উত্তর উপজেলার নতুন মোহনপুর গ্রামে মসজিদের ইমামের হাতে তার স্ত্রী জাহানারা বেগম খুন হয়েছে। এ ঘটনার পর ঘাতক স্বামীকে স্থানীয়রা আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

শনিবার সকালে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

ঘাতক ক্বারী শাহআলম পশ্চিম হানিরপাড় জামে মসজিদে ইমামতি করে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, মোহনপুর ইউনিয়নের নতুন মোহনপুর গ্রামের মৃত আবদুল্লাহর ছেলে ক্বারী শাহআলম একই গ্রামের মৃত বাচ্চু মিয়া বেপারীর মেয়ে জাহানারা বেগমের সঙ্গে ৯ বছর আগে বিয়ে হয়। তাদের ২ মেয়ে ও ১ ছেলে রয়েছে। যৌতুকের জন্য তাদের মধ্যে প্রায়ই পারিবারিক কলহ হতো।

শুক্রবার ক্বারী শাহআলমের বোন কহিনুরের সঙ্গে জাহানারার ঝগড়া হয়। রাতের খাবার খাওয়ার সময় জাহানারার ঘাড়ে শক্ত লাঠি দিয়ে আঘাত ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করে শাহআলম। ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে গলায় প্লাস্টিকের সুতা বেঁধে দেয়।

নিহত জাহানারা বেগমের ভাই নয়ন মিয়া জানায়, বিয়ের পর থেকে বিভিন্ন সময় শাহআলম টাকার জন্য চাপ দিতো। জাহানারাকে মারধরও করতো। সন্তানদের দিকে তাকিয়ে সব কিছু সহ্য করতো জাহানারা।

ঘাতক ক্বারী শাহআলম শনিবার এশার নামাজের পর বাড়িতে গিয়ে স্ত্রীকে হত্যা করে কর্মস্থল পশ্চিম হানিরপাড়ে চলে যায়। সেখানে ফজর নামাজও পড়ায়। জাহানারা নিহতের কথা জানাজানি হলে শাহআলমকে কৌশলে গ্রামের লোকজন বাড়িতে নিয়ে আসে।

নিহত জাহানারা বেগমের ভাই নয়ন মিয়া বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে।

ঘটনার খবর পেয়ে মতলব উত্তর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খান মো. এরফান ও পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) সফিকুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরির্দশন করেছেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মোহনপুর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই মো. শাহআলম জানান, পারিবারিক কলহে এ হত্যাকাণ্ড হয়েছে। ঘাতক স্বামীকে আটক করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর মর্গে পাঠানো হয়েছে।